রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:২৭ অপরাহ্ন
Uncategorized

জহির খানের পরিচালনায় অর্পনা-তারভীরের টেলিফিল্ম ‘নীলার লাল শাড়ী’

জমজমাট ডেস্ক
  • আপডেট সময় : শনিবার, ৩০ অক্টোবর, ২০২১

সম্প্রতি নির্মিত হলো রাজধানী উত্তরায় চ্যানেল আইয়ের টেলিফিল্ম ‘নীলার লাল শাড়ী’। রচনা তারেক মাহমুদ চিত্রনাট্য ও পরিচালনা জহির খান।চিত্রগ্রহনে ছিলেন নিয়াজ মাহবুব। টেলিফিল্মে অভিনয় করেছেন – অর্পনা ঘোষ, গোলাম কিবরিয়া তানভীর, আবদুল্লাহ রানা, ইশরাত জাহান, আহমেদ জিসান,সাহেলা আক্তার,মোঃ শামীম, লাভলী আক্তার, নাসিক মাহি প্রমুখ।

এ গল্পে দেখা যাবে-বাবা মায়ের আদরের মেয়ে নীলা। প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়পশোনা করে। বাবা জামশেদ চৌধুরী বড় ব্যবসায়ী। মা জুলেখা চৌধুরী গৃহিনী। বাড়ির কেয়ারটেকার রফিক। কাজের মেয়ে বিলকিস।

আদরের মেয়ে হওয়াতে বাবা মা সন্তানের সাধ আহ্লাদে কমতি রাখেনি। মডার্ণ মেয়ে। ওয়েস্টার্ণ ড্রেসে চলাফেরা করে। কাউকে কেয়ার করে না। একদিন ছাদে কাপড় শুকাতে দেয়ার কারণে তার প্রিয় একটি লালশাড়ী উড়ে যায় বাতাসে। কাজের মেয়ে বিলকিসের উপর রাগ ঝাড়ে কিন্তু কোনো কাজ হয় না। বাবা বলে ওরকম লালশাড়ী তাকে এনে দেবে কিন্তু মেয়ে রাজি হয় না। হারিয়ে যাওয়া শাড়ীটিই সে চায় যে কোনো মূল্যে।

কেয়ার টেকার রফিক পরামর্শ দেয় মাইকিং করতে। মেয়েটি রাজী হয়, বাবা মাও রাজী হতে বাধ্য হয়। রফিক একটা হ্যান্ডমাইক যোগার করে রিকশা নিয়ে বেড়িয়ে পড়ে মাইকিং করতে। লোকজন এমন মাইকিংয়ের খবর কখনো শোনেনি। সবাই হা করে শোনে আর মুখ টিপে হাসে। কিন্তু কাজ হয় না। মেয়ে আবার জিদ শুরু করে তার হারিয়ে যাওয়া লালশাড়ী ফিরে পাওয়ার জন্য। রফিক এবার বুদ্ধি দেয় খবরের কাগজে বিজ্ঞাপন দেয়ার জন্য। বাবা মা মেয়ে রফিকের কথায় যুক্তি পেয়ে কাগজে বিজ্ঞাপন দেয় কিন্তু লাভ হয় না। এভাবে গল্পের টান পুরন শুরু হয়।

পরিচালক জহির খান বলেন, দীর্ঘ অনেক দিন পর চ্যনেল আইয়ের টেলিফিল্ম ‘নীলার লাল শাড়ী’ মাধ্যমে আবার কাজে ফিরছি। অসাধারণ গল্প নিয়ে দর্শকের সামনে আসছি।আশা করছি ভালো কিছু হবে। টেলিফিল্মটি দর্শকের ভালো লাগবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরির আরো নিউজ

পুরাতন খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  
© All rights reserved © 2018 jamjamat.net
ডিজাইন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট : উইন্সার বাংলাদেশ