শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৫৪ অপরাহ্ন
Uncategorized

পদ্মা সেতু উদ্বোধন ঘিরে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটাতে নাশকতার শঙ্কা, যুবক গ্রেপ্তার

জমজমাট ডেস্ক
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ১৪ জুন, ২০২২

জমজমাট ডেস্ক

পদ্মা সেতু উদ্বোধন সামনে রেখে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটাতে মাঠে নেমেছে একটি পক্ষ। এর জন্য তারা সুশৃঙ্খল বাহিনীর সদস্যসহ জনগণকে বিভ্রান্ত করতে লিফলেট বিতরণ ও বিভিন্ন স্থানে পোস্টারও লাগাচ্ছে।

এই তৎপরতার পেছনে আছেন আদালতে দণ্ডপ্রাপ্ত প্রবাসে থাকা সাবেক সেনা কর্মকর্তা শহীদ উদ্দিন খান। গত ১১ জুন রাজধানীর বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের দক্ষিণ গেট থেকে গ্রেপ্তার করা এক যুবকের জবানবন্দি থেকে এসব তথ্য পেয়েছে ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা ও অপরাধ তথ্য বিভাগ-ডিবি। তাঁকে সাত দিনের রিমান্ডের আবেদন করে আদালতে পাঠানো হয়। শুনানি শেষে এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

ডিবি কর্মকর্তারা বলেন, ধরা পড়ার আগে কৌশিকুর রহমান ১৫-২০ দিন ধরে ঢাকার লালবাগ, ধানমণ্ডি ও মতিঝিল এলাকায় দুই-তিন হাজার লিফলেট বিতরণ করেছেন। গ্রেপ্তার কৌশিকুর রহমানের কাছ থেকে শহীদ উদ্দিনের ছবিসহ ৩৯৫টি লিফলেট উদ্ধার করেছে ডিবি। লিফলেটের বাঁ পাশে শহীদ উদ্দিনের ছবি, ডান পাশে মুষ্টিবদ্ধ তিনটি হাতের মটিফ রয়েছে। মাঝখানে লেখা রয়েছে ‘হঠাও মাফিয়া, বাঁচাও দেশ, শহীদ স্যারের নির্দেশ’। ১০ দফা দাবিসংবলিত লিফলেটের নিচে লেখা ‘বাংলাদেশ জিন্দাবাদ’।

কৌশিকুর রহমানকে জিজ্ঞাসাবাদে পাওয়া তথ্যের বরাত দিয়ে ডিবি কর্মকর্তা বলেন, তিনি প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছেন, শহীদ উদ্দিনের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা পেয়ে তাঁর সহযোগী খোকন ও বাবু এই লিফলেট প্রিন্ট করে তাঁকে বিতরণের দায়িত্ব দিয়েছিলেন। তিনিও টাকার বিনিময়ে সেই দায়িত্ব নিয়েছেন।

এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে গত ১২ জুন পল্টন থানায় সন্ত্রাসবিরোধী আইনে চারজনকে আসামি করে মামলা করেছে। আসামিরা হলেন, শহীদ উদ্দিন খান, তাঁর ঘনিষ্ঠ খোকন, বাবু এবং গ্রেপ্তার হওয়া কৌশিকুর রহমান।

ডিবির মতিঝিল বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, এজাহারভুক্ত অপর তিন আসামিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। ঢাকা ও ঢাকার বাইরের সব থানাকে সতর্ক করা হয়েছে। শহীদ উদ্দিন ও তাঁর সহযোগীদের গ্রেপ্তার করা গেলে ঘটনার নেপথ্যের পুরো চক্রের নাম জানা যাবে।

আয়কর ফাঁকির মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত শহীদ উদ্দিন খানের কর্নেল পদবি গত বছর বাতিল করা হয়। রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এক প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়, কর্নেল মো. শহীদ উদ্দিন খান (অব.)-এর বরখাস্তের পরিবর্তে স্বাভাবিক অবসরসংক্রান্ত আদেশ এবং কর্নেল পদে ভূতাপেক্ষ পদোন্নতিসহ অকালীন অবসরসংক্রান্ত আদেশ বাতিল করা হয়েছে।

শহীদ উদ্দিন খানের বিরুদ্ধে পরিবার নিয়ে লন্ডনে বসে রাষ্ট্রবিরোধী কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর। ২০২০ সালে আয়কর ফাঁকির মামলায় তাঁর ৯ বছরের কারাদণ্ড হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরির আরো নিউজ

পুরাতন খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  
© All rights reserved © 2018 jamjamat.net
ডিজাইন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট : উইন্সার বাংলাদেশ